অদ্ভুত এক সমস্যা নিয়ে জন্মেছে শিশুটি !

শনিবার, ১০ অক্টোবর ২০১৫

সিটিজিবার্তা ২৪ ডটকম 

surprise-story-of-the-babyআন্তর্জাতিক ডেস্ক ঃ শারীরিক প্রতিবন্ধী হয়ে জন্ম নেয়া শিশুদের বড় করে তোলা কত যে কঠিন, তা একমাত্র বুঝতে পারেন বাবা মায়েরাই। কিন্তু যুক্তরাষ্ট্রের এক দম্পতির অভিজ্ঞতা সত্যিই বিরল। অদ্ভুত এক সমস্যা নিয়ে জন্মেছে তাদের শিশুটি।

যুক্তরাষ্ট্রের ফ্লোরিডার শিশুটিকে দেখলে যে কেউ হতভম্ব হয়ে যাবেন। এই শিশুর মাথায় খুলির বেশিরভাগ অংশই নেই। জ্যাক্সন বুয়েল নামে শিশুটি গেল ১৭ই আগস্ট এক বছর পূর্ণ করেছে।

অসাধারণ প্রাণশক্তির অধিকারী শিশুটির বাবা মা ব্র্যান্ডন বুয়েল ও ব্রিটানি বুয়েল সম্প্রতি একটি ভিডিও প্রকাশ করেন, যেখানে আধো আধো স্বরে বাবা মাকে ডাকতে দেখা যায় তাকে। শুধু তাই নয়, হাসলে দেখা যায় তার দুধের দাঁতও।

জ্যাকসনের জন্মের আগেই অন্তঃসত্ত্বা ব্রিটানিকে সতর্ক করে দিয়েছিলেন চিকিৎসকেরা, তার গর্ভের সন্তান বিরল রোগ আক্রান্ত। তাই গর্ভপাত করানোর পরামর্শও দিয়েছিলেন তাদের। মাইক্রো-হাইড্রেনেন-সেফালি নামের বিরল সেই রোগের কারণে মানুষের মস্তিষ্কের গঠন সম্পূর্ণ হয় না।

তবু সব জেনেশুনে ব্রিটানি বাচ্চাটি রাখেন, এবং এক পুত্রসন্তানের জন্ম দেন। চিকিৎসকেরা বলে দিয়েছিলেন, নবজাতকের আয়ু বড়জোর কয়েক দিন। কিন্তু সবাইকে অবাক করে দিয়ে বড় হচ্ছে জ্যাক্সন। ইতোমধ্যে তার বাবা মা ‘জ্যাক্সন স্ট্রং’ নামে একটি ফেসবুক পেজ খুলেছেন যেটির লাইকার সংখ্যা আড়াই লাখেরও বেশি।

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, জ্যাক্সনের বেঁচে থাকা এক অতিপ্রাকৃত ঘটনা। তার এই বেঁচে থাকা নিয়ে চিন্তা করছেন তারা। কিন্তু তার বাবা মা এতকিছু ভাবতে রাজি নন। জ্যাক্সন বেঁচে আছে এতেই তারা আনন্দিত। এখন তাদের একমাত্র লক্ষ্য ছোট্ট জ্যাকসনকে আদর যত্নে বড় করে তোলা। শিশুটি বেঁচে থাকুক মানুষের প্রাণশক্তি হয়ে, এটাই স্বপ্ন তাদের।

আপনার মতামত দিন....

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।


CAPTCHA Image
Reload Image

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.