খালেদা জিয়ার অসুস্থতা গোপন করার অভিযোগ

Wednesday, 28 March 2018

ctgbarta24.com

কারাগারে থাকা খালেদা জিয়ার অসুস্থতা গোপন করা হয়েছে বলে অভিযোগ এনে তাঁর আইনজীবীরা বলছেন, বিএনপি চেয়ারপারসনকে নিয়ে তাঁরা চিন্তিত। আইনজীবীরা মনে করেন, তাঁর সুচিকিৎসার প্রয়োজন।

আজ বুধবার দুপুরে বকশীবাজার আলিয়া মাদ্রাসা মাঠে স্থাপিত বিশেষ আদালত থেকে বের হয়ে খালেদা জিয়ার আইনজীবীরা এসব কথা বলেন।

খালেদা জিয়ার আইনজীবী সানাউল্লাহ মিয়া বলেন, আজ মামলার তারিখ ধার্য ছিল। খালেদা জিয়াকে আজ আদালতে আনা হয়নি।

আদালতের পরোয়ানার ফিরতি কাগজ (কাস্টডি পরোয়ানা) দেখেছেন বলে জানিয়ে সানাউল্লাহ মিয়া বলেন, ‘আমরা দেখেছি খালেদা জিয়া অসুস্থ। যেহেতু তিনি অসুস্থ, আমরা খুবই চিন্তিত। কারণ, আমরা জানতে পারছি না। উনারাও পরিষ্কার করে কিছুই বলেননি।’

সানাউল্লাহ মিয়া বলেন, তিনি কী রোগে ভুগছেন, তিনি কেন এলেন না— সরকারের পক্ষ থেকে, রাষ্ট্রপক্ষ থেকে বিস্তারিত কিছু জানানো হয়নি। শুধু লেখা আছে, বেগম খালেদা জিয়া জেলে অসুস্থ। এই মামলার আগামী তারিখ ধার্য করেছে ৫ এপ্রিল।

আরেক আইনজীবী মো. আমিনুল ইসলাম বলেন, ‘আমরা সাড়ে নয়টায় আদালতে এসেছি। পৌনে ১২টা পর্যন্ত রাষ্ট্রপক্ষ থেকে বিভিন্ন জায়গায় ফোনালাপ করতে আমরা দেখলাম। তাদের মধ্যে আমরা বিভিন্ন দৌড়ঝাঁপ দেখেছি। আমরা বুঝতে পারছিলাম না কী কারণে বেগম খালেদা জিয়াকে হাজির করা হচ্ছে না। অবশেষে আমরা যেটা দেখলাম, একটা পরোয়ানা জেলখানা থেকে এসেছে। সেখানে আমরা জানলাম, তিনি (খালেদা জিয়া) অসুস্থ।’

খালেদা জিয়ার আইনজীবী আমিনুল ইসলাম বলেন, ‘আমরা চিন্তিত। আমরা শঙ্কিত। খালেদা সুচিকিৎসার প্রয়োজন। আমরা আগের জামিনে যে কথাগুলো উল্লেখ করেছি, এটিই আজকে প্রকারান্তরে রাষ্ট্রপক্ষের বক্তব্যে প্রমাণিত হয়েছে।’

আজ জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট মামলায় হাজির করা হয়নি খালেদা জিয়াকে। আদালত বসার পর আজ দুদকের আইনজীবী মোশাররফ হোসেন কাজল সাংবাদিকদের বলেন, ‘আজকে অন্য আসামিরা উপস্থিত ছিলেন। কিন্তু খালেদা জিয়াকে জেল কর্তৃপক্ষ আদালতে হাজির না করায় মামলার নতুন তারিখ হয়েছে। আশা করছি, আগামী ৫ এপ্রিল থেকে জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্টের বাকি কার্যক্রমগুলো সম্পূর্ণ করতে পারব।’

কারা কর্তৃপক্ষ হাজির করেনি কেন?

সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নে মোশাররফ হোসেন কাজল আরও বলেন, ‘কারা কর্তৃপক্ষ হাজির না করার কারণ অনেক রকম থাকতে পারে। আমরা গত তারিখেও তাঁকে পাইনি। উনি জেল কাস্টডিতে আছেন। কাস্টডিতে থাকাকালে তাঁর দেখভাল করার দায়িত্ব কারা কর্তৃপক্ষের। কারা কর্তৃপক্ষ যদি হাজির না করে, এখানে তো আমাদের বলার কিছু নেই।’

আদালতকে কারা কর্তৃপক্ষ কী জানিয়েছে, অসুস্থতার ব্যাখ্যা দিয়েছে কি না—এমন প্রশ্নের জবাবে দুদকের এই আইনজীবী বলেন, ‘কারা কর্তৃপক্ষ কী ব্যাখ্যা দিয়েছে আমি জানি না।’

খালেদা জিয়া অসুস্থ এমন কথাও বলা হচ্ছে—সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নের জবাব না দিয়েই চলে যান মোশাররফ হোসেন কাজল। তবে তাঁর সঙ্গে থাকা আরেক আইনজীবী বলেন, ‘এটার কোনো জবাব নেই।’

আপনার মতামত দিন....

এ বিষয়ের অন্যান্য খবর:


মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।


CAPTCHA Image
Reload Image

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.