ঝুঁকিপূর্ণ এলাকায় বসবাসকারী রোহিঙ্গাদের জন্য সমতল ভূমির খোঁজে স্থানীয় প্রশাসন

Sunday, 22 April 2018

ctgbarta24.com

টেকনাফ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও অন্যান্য দায়িত্বশীল কর্মকর্তারা রোহিঙ্গাদের নিরাপদ স্থানের খোঁজে এলাকা পরিদর্শন করছেন।

আর করিম, টেকনাফ ঃ কক্সবাজারেরে টেকনাফ উপজেলার পাহাড়ের ঢালে ঝুঁকিপূর্ণ অবস্থায় বসবাসকারী মায়ানমারের সেনাবাহিনীর  নির্যাতনের হাত থেকে পালিয়ে আসা রোহিঙ্গাদের জন্য নিরাপদ স্থানের সমতল ভূমির খোঁজ করছেন স্থানীয় টেকনাফ উপজেলা প্রশাসন।

শনিবার ( ২১ এপ্রিল ) টেকনাফ উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ রবিউল হাসান এর নেতৃতে সহকারী কমিশনার (ভূমি) প্রণয় চাকমা, জাতিসংঘ উদ্বাস্ত বিষয়ক হাইকমিশণ (ইউএনএইচসিআর), আর্ন্তজাতিক অভিবাসন সংস্থা (আইওএম) এবং স্থানীয় জনপ্রতিনিধিরা টেকনাফের উঞ্চিপ্রাং, চাকমারকুল রোহিঙ্গা ক্যাম্প পরিদর্শন করেন ।

রোহিঙ্গা ক্যাম্পে বসবাসকারী যুবক মাহাবুব জানান, মায়ানমারের সেনাবাহিনীর  নির্যাতনের হাত থেকে পালিয়ে আর নিজ ভিটে মাটি ছেড়ে এই দেশে আশ্রয় পেয়েছি। সামনে বর্ষার সময়ে কি কষ্টে জীবন অতিবাহিত হবে এই ভেবে চিন্তা মগ্ন আমরা।কয়েকদিন আগে অল্প বৃষ্টিতেই রাস্তাগুলো ভাঙ্গতে শুরু করেছে। বৃষ্টির কারণে যাতায়াতের পথগুলো অনুপযোগী হয়ে পড়েছে বলে জানান এই যুবক।

ইতিমধ্যে প্রায় ১১ লাখের বেশী রোহিঙ্গা বর্তমানে উখিয়া-টেকনাফের বিভিন্ন শিবিরে মাথা গোজার ঠায় পেয়েছেন। দেশ ও বিদেশের বিভিন্ন দাতা সংস্থা বাস্তহারা এই মানুষদের সহযোগিতা করে যাচ্ছেন। তাদের নিত্য প্রয়োজনীয় সামগ্রী বিতরণ করছে এসব দাতা সংস্থা।

টেকনাফ উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ রবিউল হাসান তার নিজের ফেসবুক স্ট্যাটাসে উল্লেখ করেন, ” Hunting safe land for Rohigya refugee before coming rainy season to avoid the devastating land slide.” যে সব লোক ঝুঁকি এলাকায় বসবাস করছেন তাদের নিরাপদ আশ্রয়ে স্থানান্তর করতে উপজেলা প্রশাসন সমতল ভূমির সন্ধান করছে। এই জন্য রোহিঙ্গা ক্যাম্প সরেজমিন পরিদর্শন ও সম্ভাব্য নিরাপদ স্থানও দেখা হয়েছে জানা যায়।

আপনার মতামত দিন....

এ বিষয়ের অন্যান্য খবর:


মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।


CAPTCHA Image
Reload Image

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.